বুধবার, ২৮ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ১৫ ফাল্গুন ১৪৩০ বঙ্গাব্দ

পঞ্চগড়ে করতোয়া নদী থেকে মর্টার শেল উদ্ধার

  • Reporter Name
  • Update Time : ০৬:৩৬:০৩ অপরাহ্ন, সোমবার, ৩০ অগাস্ট ২০২১
  • ২৮ Time View

পঞ্চগড় প্রতিনিধি
পঞ্চগড়ের সদর উপজেলায় করতোয়া নদী থেকে বালু তোলার সময় শ্রমিকদের বালি তোলার টুকরীতে উঠে আসা প্রায় ১২-১৪ ইঞ্চি লম্বা একটি মর্টার শেল উদ্ধার করেছে পুলিশ। সোমবার দুপুরে পঞ্চগড় পৌরসভার সিএন্ডবি মোড় এলাকার করতোয়া নদী সংলগ্ন এলাকা থেকে উদ্ধার করা হয়। ধারণা করা হচ্ছে দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধ কিংবা ১৯৭১ সালে মহান মুক্তিযুদ্ধে এটি ব্যবহার হয়ে থাকতে পারে। তবে সে সময়ে বিস্ফোরিত না হওয়া এই মর্টার শেলটি এখনো সচল আছে কিনা সে বিষয়ে সেনাবাহিনীর বোস্ব ডিস্পোজাল ইউনিটের সদস্যরা পরীক্ষা-নিরীক্ষার পরে বলতে পারবেন বলে জানিয়েছে পুলিশ।

পুলিশ ও প্রত্যক্ষদর্শী সূত্রে জানা যায়, উপজেলা গড়িনাবাড়ী ইউনিয়নের ফুটকিবাড়ী এলাকার রহমত আলী, আব্দুর রাজ্জাক নামে দুইজন শ্রমিক সোমবার সকালে পৌর এলাকার রামের ডাংগা এলাকায় বালি তোলার কাজ করতে যায়। পরে নদী থেকে বালি তোলার সময় টুকরীতে করে বালির সাথে একটি পুরনো লোহার দন্ড মত একটি বস্তু উঠে আসে। পরে সেটিকে তারা সিএন্ডবি এলাকায় নিয়ে যায়। সেখানে তারা তৌহিদুল ইসলাম নামে এক ব্যাক্তিকে জানালে তিনি পঞ্চগড় সদর থানায় খবর দেন। পরে পুলিশ দ্রুত ঘটনাস্থলে গিয়ে মর্টার শেলটি উদ্ধার করে নিরাপদ স্থানে নিয়ে বালির স্তুপে বালি দিয়ে আল তৈরী করে চারিদিকে নিরাপত্তা বেষ্টনী দিয়ে ঘিরে রেখেছে।


পঞ্চগড় সদর থানার পরিদর্শক (তদন্ত) মো বেনজীর আহমেদ জানান, সোমবার সকালে দুইজন শ্রমিক করতোয় নদীতে বালি তোলার কাজ করতে গেলে নদী থেকে মর্টার শেলটি উঠে আসে। পরে তারা আমাদের জানালে আমরা দ্রুত ঘটনাস্থলে গিয়ে মর্টার শেলটি উদ্ধার করে নিরাপত্তা বেষ্টনী দিয়ে ঘিরে রেখা হয়েছে।  আমাদের ফোর্স সেখানে পাহাড়া দিচ্ছে। ধারণা করা হচ্ছে এটি দ্বিতীয় বিশ^যুদ্ধ কিংবা ১৯৭১ সালে মহান মুক্তিযুদ্ধে ব্যবহার হয়ে থাকতে পারে। এটি লম্বায় ১২ থেকে ১৪ ইঞ্চি হবে। তবে কবেকার তৈরী সেটি এখনো জানা যায়নি। এ বিষয়ে সৈয়দপুর সেনানিবাসের বোম্ব ডিস্পোজাল ইউনিটের কর্মকর্তাদের সাথে আলোচনা করে মর্টারশেলটি ধ্বংসের ব্যবস্থা করা হবে।

Tag :
About Author Information

Daily Banalata

Popular Post

পঞ্চগড়ে করতোয়া নদী থেকে মর্টার শেল উদ্ধার

Update Time : ০৬:৩৬:০৩ অপরাহ্ন, সোমবার, ৩০ অগাস্ট ২০২১

পঞ্চগড় প্রতিনিধি
পঞ্চগড়ের সদর উপজেলায় করতোয়া নদী থেকে বালু তোলার সময় শ্রমিকদের বালি তোলার টুকরীতে উঠে আসা প্রায় ১২-১৪ ইঞ্চি লম্বা একটি মর্টার শেল উদ্ধার করেছে পুলিশ। সোমবার দুপুরে পঞ্চগড় পৌরসভার সিএন্ডবি মোড় এলাকার করতোয়া নদী সংলগ্ন এলাকা থেকে উদ্ধার করা হয়। ধারণা করা হচ্ছে দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধ কিংবা ১৯৭১ সালে মহান মুক্তিযুদ্ধে এটি ব্যবহার হয়ে থাকতে পারে। তবে সে সময়ে বিস্ফোরিত না হওয়া এই মর্টার শেলটি এখনো সচল আছে কিনা সে বিষয়ে সেনাবাহিনীর বোস্ব ডিস্পোজাল ইউনিটের সদস্যরা পরীক্ষা-নিরীক্ষার পরে বলতে পারবেন বলে জানিয়েছে পুলিশ।

পুলিশ ও প্রত্যক্ষদর্শী সূত্রে জানা যায়, উপজেলা গড়িনাবাড়ী ইউনিয়নের ফুটকিবাড়ী এলাকার রহমত আলী, আব্দুর রাজ্জাক নামে দুইজন শ্রমিক সোমবার সকালে পৌর এলাকার রামের ডাংগা এলাকায় বালি তোলার কাজ করতে যায়। পরে নদী থেকে বালি তোলার সময় টুকরীতে করে বালির সাথে একটি পুরনো লোহার দন্ড মত একটি বস্তু উঠে আসে। পরে সেটিকে তারা সিএন্ডবি এলাকায় নিয়ে যায়। সেখানে তারা তৌহিদুল ইসলাম নামে এক ব্যাক্তিকে জানালে তিনি পঞ্চগড় সদর থানায় খবর দেন। পরে পুলিশ দ্রুত ঘটনাস্থলে গিয়ে মর্টার শেলটি উদ্ধার করে নিরাপদ স্থানে নিয়ে বালির স্তুপে বালি দিয়ে আল তৈরী করে চারিদিকে নিরাপত্তা বেষ্টনী দিয়ে ঘিরে রেখেছে।


পঞ্চগড় সদর থানার পরিদর্শক (তদন্ত) মো বেনজীর আহমেদ জানান, সোমবার সকালে দুইজন শ্রমিক করতোয় নদীতে বালি তোলার কাজ করতে গেলে নদী থেকে মর্টার শেলটি উঠে আসে। পরে তারা আমাদের জানালে আমরা দ্রুত ঘটনাস্থলে গিয়ে মর্টার শেলটি উদ্ধার করে নিরাপত্তা বেষ্টনী দিয়ে ঘিরে রেখা হয়েছে।  আমাদের ফোর্স সেখানে পাহাড়া দিচ্ছে। ধারণা করা হচ্ছে এটি দ্বিতীয় বিশ^যুদ্ধ কিংবা ১৯৭১ সালে মহান মুক্তিযুদ্ধে ব্যবহার হয়ে থাকতে পারে। এটি লম্বায় ১২ থেকে ১৪ ইঞ্চি হবে। তবে কবেকার তৈরী সেটি এখনো জানা যায়নি। এ বিষয়ে সৈয়দপুর সেনানিবাসের বোম্ব ডিস্পোজাল ইউনিটের কর্মকর্তাদের সাথে আলোচনা করে মর্টারশেলটি ধ্বংসের ব্যবস্থা করা হবে।